বৃহস্পতিবার, ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৫:৩৩ অপরাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
প্রতিনিধি আবশ্যক, অনলাইন পত্রিকা আমার সুরমা ডটকমের জন্য প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন : ০১৭১৮-৬৮১২৮১, ০১৬২৫-৬২৭৬৪৩
সংবাদ শিরোনাম :
এইচএসসির ফল প্রকাশ, পাসের হার ৮৫.৯৫ শতাংশ নিহতের সংখ্যা ৫০০০ ছাড়ালো, তিন মাসের জরুরি অবস্থা জারি তুরস্কে রাজাকার ও বিএনপির লোকদের নিয়ে সুরঞ্জিত সেনগুপ্তের শোকর‌্যালি পাকিস্তানের সাবেক সামরিক শাসক পারভেজ মোশাররফের মৃত্যু চট্টগ্রাম কলেজের ১৭৫ শিক্ষার্থী ৩ ঘন্টার অভিযানে ডুবোচর থেকে উদ্ধার ফরিদপুরে একই পরিবারে ৫ সদস্যের ইসলাম ধর্ম গ্রহণ কে হচ্ছেন রাষ্ট্রপতি জানা যাবে মঙ্গলবার বিশ্ব হাত গুটিয়ে বসে থাকলে আরেকটি রোহিঙ্গা গণহত্যা হবে: জাতিসঙ্ঘ ১০ দফা আদায়ে ব্যর্থ হলে বাংলাদেশ ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত হবে: মির্জা ফখরুল বহিষ্কৃত নেতার সমাবেশে জেলা সভাপতি: উজ্জীবিত নেতাকর্মীরা
সৌদি প্রবাসী বিলালের বিলাপ: ২০ বছর পর স্ত্রীর সাথে সাক্ষাত, কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে মৃত্যু

সৌদি প্রবাসী বিলালের বিলাপ: ২০ বছর পর স্ত্রীর সাথে সাক্ষাত, কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে মৃত্যু

আমার সুরমা ডটকম ডেক্স : স্ত্রীকে হজে নেয়ার জন্য ২০ বছর ধরে অর্থ সঞ্চয় করছিলেন বাংলাদেশের সৌদি প্রবাসী মোহাম্মদ বিলাল। হজ্ব উপলক্ষে ২০ বছর পর তারা একত্রে মিলিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার মিনায় পাদপিষ্ট হয়ে হজ্ব যাত্রীর সাথে মারা গেছেন তার প্রিয়তমা স্ত্রীও। স্ত্রীর শোকে কাতর মোহাম্মদ বিলালকে মিনা আল জিসর হাসপাতালের ফুটপাতে বসে বিলাপ করতে দেখা গেছে। সৌদিআরবের প্রভাবশালী সংবাদ পত্র সৌদি গেজেটের শনিবারের সংখ্যার প্রথম পৃষ্টায় এ সংবাদটি গুরুত্ব সহকারে প্রকাশিত হয়েছে। বিলাল কান্নাজড়িত কন্ঠে বলেন, গত ২৫বছর ধরে তিনি সৌদিআরবে অবস্থান করছেন। সেখানকার দাহরান আল জানুব-এর পোশাকের দোকানে তিনি চাকুরি করেন। জানালেন, স্ত্রীকে হজ্বে আনতে আমি ২০ বছর ধরে অর্থ সঞ্চয় করছি। এই সময়কালে তাদের মধ্যে কোন সাক্ষাতও হয়নি। ২০ বছর পর যখন আমাদের সাক্ষাত হলো, তখন কয়েক সেকেন্ডের মধ্যেই তার মৃত্যু হয়ে গেলো-অশ্রুসজল কণ্ঠে জানালেন বিলাল। বললেন, ঘটনার দিন সকাল সাড়ে ৭টার দিকে তিনি ও তার স্ত্রী জামারাতে শয়তানকে লক্ষ্য করে কংকর (পাথর) নিক্ষেপ করছিলেন। তারা ২০৪ নম্বর রাস্তা দিয়ে জামারাতে প্রবেশ করেন। মানুষের শ্রোতের মধ্যে এক পর্যায়ে তারা মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। অনেক হজ্বযাত্রী তাদের ওপর পড়ে যান। এ সময় তিনি উঠে দাঁড়িয়ে স্ত্রীকে বাঁচাবার করুণ আকুতি জানালে-কেউ তার সাহায্যার্থে এগিয়ে আসেনি। সবাই নিজকে নিয়ে ব্যস্ত। ভিড়ের তাকে তোলার চেষ্টা চালিয়েও ব্যর্থ হই। সে আমাকে এবং আমার তিন সন্তানকে বিদায় না জানিয়েই চলে গেল-বললেন বিলাল। ভিড়ের চাপে আহত বিলাল নিজেও হাসপাতাল থেকে চিকিৎসা নিয়েছেন। তার শরীরেও আঘাতে চিহ্ন রয়েছে। এ অবস্থায় তিনি মিনা আল জিসর হাসপাতাল চত্বরে স্ত্রীর লাশের অপেক্ষায় রয়েছেন তাকে শেষ বিদায় জানাতে। তার স্ত্রীকে সমাহিত করা পৃথিবীর সবচেয়ে পবিত্র স্থানে একজন শহীদ হিসাবে-এটাই এখন বিলালের সান্তনা। অবশ্য, সৌদি গেজেটের রিপোর্টে-বিলাল ও তার স্ত্রীর পূর্ণাঙ্গ ঠিকানা প্রকাশ করা হয়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2017-2019 AmarSurma.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: