বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ১২:২৫ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
প্রতিনিধি আবশ্যক, অনলাইন পত্রিকা আমার সুরমা ডটকমের জন্য প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন : ০১৭১৮-৬৮১২৮১, ০১৬২৫-৬২৭৬৪৩
পাথরবাহি ৩টি ট্রাক্টর আটক-ছাতকে পুলিশী ধাওয়ায় পালিয়ে গেল দু’শতাধিক টিলা খেকোচক্র

পাথরবাহি ৩টি ট্রাক্টর আটক-ছাতকে পুলিশী ধাওয়ায় পালিয়ে গেল দু’শতাধিক টিলা খেকোচক্র

চান মিয়া, বিশেষ সংবাদদাতা (সুনামগঞ্জ): সুনামগঞ্জের ছাতকে সন্ত্রাসী কায়দার মনিপুরি বস্তির ধনীটিলায় জোরপূর্বক পাথর উত্তোলনকালে পুলিশের ধাওয়া খেয়ে পালিয়ে গেছে অবৈধ দখলদারদের প্রায় দু’শতাধিক শ্রমিক। এ সময় পাথর পরিবহনে নিয়োজিত ৩টি ট্রাক্টর আটকসহ পাথর খোঁড়ার সরঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়। জানা যায়, উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের ভারতীয় সীমান্তবর্তী নিজগাঁও ও বনগাঁওসহ বিভিন্ন গ্রামের দু’শতাধিক লোক মঙ্গলবার (২৫ এপ্রিল) সকাল থেকে ডাক-ঢোল পিটিয়ে নৃগোষ্ঠির লোকজনকে জিম্মি করে ধনীটিলায় পাথর উত্তোলন করত থাকে। এ সময় রাসনগর-মনিপুরী বস্তির ধনীটিলায় অবৈধভাবে পাথর উত্তোলনে নেতৃত্ব দেয় স্থানীয় সুজন, আবদুল হাই, মানিক, নুরুজ্জামান, জাহাঙ্গীর ও বাতির হত্যা মামলার আসামি মুজিবসহ অনেকে। এ সময় তারা নিজেকে আওয়ামীলীগ নেতা পরিচয় দেয়। এ ব্যাপারে মনিপুরী বস্তির ব্রজেন্দ্র সিংহ ও মিলন সিংহসহ অনেকের জানান, ধনীটিলা মনিপুরীদের নিজস্ব সম্পদ। সরকার দলের সাইনবোর্ডের আড়ালে কতিপয় লোক লিজ ছাড়াই জোরপূর্বক ধনীটিলার পাথর উত্তোন করছে। প্রাণ ভয়ে এদের অপতৎপরতায় বাঁধা দেয়া হয়নি বলে জানান তারা। গত ১৩ এপ্রিল ব্রজেন্দ্র সিংহের একটি ঘরে আগুন ধরিয়ে দেয় দূর্বৃত্তরা। এ সময় পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে দু’পক্ষকে নিজ নিজ কাগজপত্র নিয়ে থানায় যাবার নির্দেশ দেন। কিন্তু তারা থানায় কোন কাগজপত্র দেখাতে পারেনি। খবর পেয়ে ছাতক থানার অফিসার্স ইনচার্জ আতিকুর রহমান ও এসআই সোহেল রানার নেতৃত্বে একদল পুলিশ মঙ্গলবার দুপুরে ঘটনাস্থলে পৌছে টিলা কেটে অবৈধভাবে পাথর উত্তোলনকৃত পাথর পরিবহনের সাথে জড়িত ৩টি ট্রাক্টর আটক করেন। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে টিলা কাটার লোহার রড, খন্তা, শাবল, টুকরিসহ অন্যান্য সরঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়।

এদিকে স্থানীয় আওয়ামীলীগের একটি সূত্র ধনীটিলা জবর-দখল ও অবৈধভাবে পাথর উত্তোলনকারিদের দলীয় লোক নয় দাবি করে বলেন, একটি মহল নিজেদের ব্যক্তি স্বার্থ আদায়ের লক্ষ্যে নিজেদেরকে দলীয় লোক পরিচয় দিয়ে যাচ্ছে। প্রকৃতপক্ষে এরা দলের লোক নয়-বসন্তের কোকিল। এ ব্যাপারে সুনামগঞ্জের সহকারি পুলিশ সূপার (এএসপি) দুলন মিয়া জানান, নৃগোষ্ঠির ধনীটিলা জবরদখলের খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে পুলিশ প্রেরণ করা হয়েছে। তবে প্রশাসনের হস্তক্ষেপে এখন পাথর উত্তোলন বন্ধ রয়েছে বলে তিনি দাবি করেন। এ ব্যাপারে উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) সাবিনা ইয়াসমিন জানান, ধনীটিলা পাথর উত্তোলনে ব্রজেন্দ্র সিংহ থানায় একটি মামলা করেছেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে রয়েছে, তবে কাউকে গ্রেফতার করতে না পারলেও এখন পাথর উত্তোলন বন্ধ রয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2017-2019 AmarSurma.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: