সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ১১:৫২ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
প্রতিনিধি আবশ্যক, অনলাইন পত্রিকা আমার সুরমা ডটকমের জন্য প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন : ০১৭১৮-৬৮১২৮১, ০১৬২৫-৬২৭৬৪৩
হাওড়রক্ষা বাঁধ নির্মাণে ঠিকাদারি প্রথা বাতিলের দাবি হাওরবাসীর

হাওড়রক্ষা বাঁধ নির্মাণে ঠিকাদারি প্রথা বাতিলের দাবি হাওরবাসীর

আমার সুরমা ডটকমশুধুই নীতিমালার আলোকে নয়, বাস্তবভিত্তিক বাঁধ নির্মাণ, ঠিকাদারি প্রথা বাতিল, পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো), উপজেলা প্রশাসন ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সম্বন্নয়ে বাঁধ নির্মাণের দাবি জানিয়েছেন হাওড়বাসী। বৃস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষে প্রশাসন আয়োজিত হাওড়ের ক্ষতিগ্রস্থ বাঁধ নির্মাণ/মেরামত সংক্রান্ত সমস্যা পর্যালোচনা এবং করণীয় সম্পর্কে মতবিনিময় সভায় এমন দাবি জানানো হয়। দিরাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তৌহিদুজ্জামান পাভেলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান ছবি চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান গোলাপ মিয়া, সহকারী পুলিশ সুপার (দিরাই সার্কেল) বেলায়েত হোসেন লস্কর, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোস্তফা কামাল, পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো)’র উপ-সহকারী প্রকৌশলী অমিতাব চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আছাব উদ্দিন সরদার, সিনিয়র সহ-সভাপতি অ্যডভোকেট সোহেল আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যডভোকেট অভিরাম তালুকদার, কৃষকলীগের আহ্বায়ক তাজুল ইসলাম, যুবলীগের সভাপতি রঞ্জন রায়, ইউপি চেয়ারম্যান শিবলী আহমেদ বেগ, মুজিবুর রহমান, শাহজাহন কাজী, রতন কুমার তালুকদার, আব্দুল কুদ্দুস, রেজুয়ান খান, প্রেসক্লাব যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আবুহানিফ চৌধুরী, দূর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি হাফিজ ইদ্রিস আহমদ, ইউপি সদস্য শফিকুর রহমান চৌধুরী, দুলাল মিয়া, শেখ ফরিদ, লাল মিয়াসহ বিভিন্ন ইউনিয়ন থেকে আগত কৃষক নেতৃবৃন্দ। বক্তারা বলেন, ১০ বছর আগে এসি রুমে বসে প্রদত্ত্ব নীতিমালা দিয়ে বাঁধ নির্মাণ করলে হবেনা। বর্তমান প্রেক্ষাপট বিবেচনা করে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও হাওড়পাড়ের লোক দিয়ে উপজেলা প্রশাসনের মাধ্যমে প্রকল্প গ্রহণ করে কাজ করতে হবে। ঠিকাদারি প্রথা বাতিল ও উপজেলা পর্যায়ে পাউবোর কর্মকর্তাদের নিয়মিত অফিস করার দাবি জানিয়ে তারা বলেন, পাউবোর অসাধু কর্মকর্তাদের অনৈতিক সুবিধার্তে বরাদ্ধের সিংহভাগ টাকা অপ্রয়োজনীয় জায়গায় বরাদ্ধ দিয়ে হাতিয়ে নেয়া, আপদকালীন সময়ে ঠিকাদারের টিকিটিকিও খুঁজে পাওয়া যায়না। এলাকার সব চাইতে ঝুঁকিপূর্ণ বাঁধগুলোকে স্থায়ী সমাধানের আওতায় এনে সবগুলো সøইচগেইট চালু করার দাবি জানানো হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2017-2019 AmarSurma.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: