মঙ্গলবার, ২৫ Jun ২০২৪, ০১:৩৮ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
প্রতিনিধি আবশ্যক: অনলাইন পত্রিকা আমার সুরমা ডটকমের জন্য প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন : ০১৭১৮-৬৮১২৮১, ০১৭৯৮-৬৭৬৩০১
নির্ধারিত সময় অনুয়ায়ী হাওরের বাঁধ নির্মাণ সম্ভব না: সুনামগঞ্জে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

নির্ধারিত সময় অনুয়ায়ী হাওরের বাঁধ নির্মাণ সম্ভব না: সুনামগঞ্জে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

amarsurma.com
নির্ধারিত সময় অনুয়ায়ী হাওরের বাঁধ নির্মাণ সম্ভব না: সুনামগঞ্জে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

মুহাম্মদ আব্দুল বাছির সরদার:
নির্ধারিত সময় অনুযায়ি সুনামগঞ্জের হাওরের বাঁধ নির্মাণের কাজ শুরু বা শেষ করা যাবে না বলে মন্তব্য করছেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক। বুধবার (১৫ মার্চ) সকালে সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার বরাম হাওরের তোফালখালি বাঁধ নির্মাণ কাজ পরিদর্শনকালে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ মন্তব্য করেন প্রতিমন্ত্রী।
এ সময় প্রতিমন্ত্রী বলেন, হাওরে পানি শুকানোর বিষয়টি প্রাকৃতিক। ১৫ দিনের মধ্যে কাজ শেষ করা সম্ভব না। পানি নেমে যাওয়ার পর পিআইসি গঠন হয়েছে। যেখানে পানি ছিল সেখানে কাজ পরে শুরু হয়েছে। যেসব এলাকা কাজের উপযোগী ছিল সেখানে কাজ আগে করা হয়েছে। এবার কাজের অগ্রগতি অন্যান্য সময়ের চেয়ে ভালো। হাওর অঞ্চলে স্থায়ী বাঁধের পাশাপাশি সুনামগঞ্জে ১৯টি নদী খনন প্রকল্প গ্রহণ করা হচ্ছে বলে জানান প্রতিমন্ত্রী।
এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য শামীমা আক্তার খানম, পানি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মল্লিক সাঈদ মাহবুব, জেলা প্রশাসক দিদারের আলম মোহাম্মদ মাকসুদ চৌধুরী, পানি উন্নয়ন বোর্ডের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী এস এম শহীদুল ইসলাম, পূর্বাঞ্চলের প্রধান প্রকৌশলী খুশি মোহন সরকার, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী প্রবীর কুমার গোস্বামী, সুনামগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মামুন হাওলাদার, সামছু দোহাসহ পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মচারী ও কর্মকর্তারা। বুধবার সকালে প্রতিমন্ত্রী স্পিডবোট চড়ে দিরাই ও শাল্লা উপজেলার টাংনির হাওর, জলডোবা, জয়পুর উদগলবিল হাওরের ফসল রক্ষা বাঁধ পরিদর্শন করেন।
চলতি বছর ১ হাজার ৭২টি প্রকল্প বাস্তবায়ন কমিটির মাধ্যমে ২০৩ কোটি টাকা ব্যয়ে ৪৩টি হাওরে ৭৪৫ কিলোমিটার ডুবন্ত ফসল রক্ষা বাঁধ নির্মাণ করছে পানি উন্নয়ন বোর্ড। বাঁধ তৈরির জন্য আজ পর্যন্ত পানি সম্পদ মন্ত্রণালয় ১০০ কোটি টাকা ছাড় দিয়েছে। এ বছর ২ লাখ ২৩ হাজার হেক্টর জমিতে বোরো আবাদ করেছেন জেলার ৪ লক্ষাধিক কৃষক।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2017-2019 AmarSurma.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com