মঙ্গলবার, ১৮ Jun ২০২৪, ০২:৫২ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
প্রতিনিধি আবশ্যক: অনলাইন পত্রিকা আমার সুরমা ডটকমের জন্য প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন : ০১৭১৮-৬৮১২৮১, ০১৭৯৮-৬৭৬৩০১

রাঙামাটিতে লিগ্যাল এইড বীর মুক্তিযুদ্ধার দু’কন্যার আইনী সহায়তায় এগিয়ে এলো

amarsurma.com

মুহাম্মদ ইলিয়াস, রাঙামাটি প্রতিনিধি:

গরীব দুঃখীর মামলার ব্যয়, বাংলাদেশ সরকার দেয় এই শ্লোগানকে ধারণ করে রাঙামাটি জেলা লিগ্যাল এইড, বীর মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের বিরোধীয় ভুমি সমবন্টনে আইনী সহায়তায় নিয়ে এগিয়ে এলেন। প্রতিষ্ঠানটির এই ভুমিকায় আশার আলো দেখছে ক্ষতিগ্রস্থরা। সোমবার সংশ্লিষ্ট সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র মতে, রাঙামাটি জেলার লংগদু উপজেলার কালাপাকুজ্যা এলাকার এক বীর মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যুর পরে তাঁর সন্তানদের মাঝে ভুমি নিয়ে বিরোধ দেখা দেয়। সৎ ভাই-বোনের এই বিরোধ হামলা-মামলা, দেন-দরবার করেও কোন পক্ষ সুরাহা পাচ্ছিল না। উপায়হীন অবস্থায় সহায়-সম্পদ থেকে বঞ্চিত হয়ে দু’বোন রাঙামাটি লিগ্যাল এইড কার্যালয়ে উপস্থিত হয়ে প্রতিকার পাওয়ার আবেদন করে। ভুমি বিরোধকে কেন্দ্র করে দীর্ঘদিন ধরে চলা পারষ্পরিক হামলা-মামলায় অতিষ্টও এই দু’বোন। তারা তাদের জমির দখলে থাকা সৎ ভাইকে মীমাংসায় আনার জন্য লিগ্যাল এইড’র আশ্রয়ে এলে রাঙামাটি জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার দীর্ঘ সময় প্রচেষ্টা চালায়, কিন্তু একপক্ষ মীমাংসায় যেতে অনিহা প্রকাশ করে। সেই কারনে বিষয়টি মামলা দিকে গড়ায়। আর এই অসহায় মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের দু’নারী সদস্যের জন্য আইনী সহায়তা নিয়ে ত্রাতার ভুমিকাটি গ্রহন করে রাঙামাটি জেলা লিগ্যাল এইড।

গরীব দুঃখীর মামলার ব্যয়, বাংলাদেশ সরকার দেয় এই শ্লোগানকে ধারণ করে রাঙামাটি লিগ্যাল এইড এই উদ্যোগে আশার আলো দেখছে বীর মুক্তিযুদ্ধার দু’কন্যা সন্তান। বিরোধ মীমাংসায় একেরপর এক সাফলতার পাশাপাশি প্রতিষ্ঠানটি অসহায় মানুষকে আইনী সহায়তাও দিয়ে আসছে।

উল্লেখ্য, লংগদু উপজেলার কালাপাকুজ্যা এলাকার এক বীর মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যুর পর তার দু’পরিবারের সন্তানদের মধ্যে ভুমি বিরোধ শুরু হয়। সৎ ভাইয়ের দখলে থাকা চাষের খাস জমির প্রাপ্য অংশের জন্য পেতে চেষ্টা চালায় দু’বোন। কিন্তু বড় ভাই দখল ছাড়তে নারাজ। বিষয়টি নিয়ে এলাকার মেম্বার থেকে শুরু করে উপজেলা চেয়ারম্যান পর্যন্ত এই বোন এবং তাদের সত্তরোর্ধ্ব মায়ের প্রাপ্য অংশের জমি আপোষে বন্টনের মাধ্যমে পাবার চেষ্টা করেন। ইতোমধ্যে কয়েকটি ফৌজদারী মামলাও হয়েছে পক্ষদ্বয়ের মধ্যে।

জেলা লিগ্যাল এইড অফিসে অভিযোগ নিয়ে আসলে সব পক্ষকে নিয়ে গত এক বছর ধরে বিভিন্ন তারিখে আপোষ বন্টন করার চেষ্টা করা হয়। কিন্তু তাদের সৎ ভাই তাদের প্রাপ্য অংশ দিতে বিভিন্নভাবে সময়ক্ষেপন করে। সর্বশেষ ধাপে এসে তাদেরকে পৈত্রিক সম্পদের কোন অংশ দিতে সরাসরি অস্বীকার করে বসে। সেই কারণে জেলা লিগ্যাল এইড অফিস তাদের পক্ষে সরকারি খরচে আইনজীবী নিয়োগ করে সিভিল কোর্টে মামলা দায়েরের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এ বিষয়ে রাঙামাটি জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার ও সিনিয়র সহকারী জজ মোঃ জুনাইদ বলেন, কেউ মীমাংসায় না এলে, এখানে আইনী সহায়তার ব্যবস্থাও রয়েছে। লিগ্যাল এইড কার্যালয় অধিকার বঞ্চিতদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় মামলা পরিচালনার জন্য আইনজীবী নিয়োগসহ মামলার ব্যয়ভার বহন করবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2017-2019 AmarSurma.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com